Waters of Life

Biblical Studies in Multiple Languages

Search in "Bengali":
Home -- Bengali -- John - 019 (The first six disciples)
This page in: -- Arabic -- Armenian -- BENGALI -- Burmese -- Cebuano -- Chinese -- English -- Farsi? -- French -- Hausa? -- Hindi -- Indonesian -- Kiswahili -- Kyrgyz -- Malayalam -- Peul -- Portuguese -- Russian -- Serbian -- Spanish? -- Tamil -- Telugu -- Turkish -- Urdu -- Uyghur? -- Uzbek -- Vietnamese -- Yiddish

Previous Lesson -- Next Lesson

যোহন - নূর অন্ধকারের মধ্যে জ্বলছে
যোহন বর্ণীত মসিহের নাজাতের বারতার সুসমাচার ওপর অধ্যয়ন
প্রথম অংশ - বেহেশতি নূর ঝলমল করছে (যোহন ১:১ - ৪:৫৪)
বি - ঈসা মসিহ তার সাহাবিদেরকে অনুতাপের গোলক থেকে মিলনের আনন্দের দিকে পরিচালনা করেন (যোহন ১:১৯ - ২:১২)

৩. প্রথম ছয় সাহাবিরা (যোহন ১ : ৩৫-৫১)


যোহন ১:৪৭-৫১
৪৭. ঈসা মসিহ নথনেলকে নিজের দিকে আসিতে দেখিয়া তাহার বিষয়ে বলিলেন, 'ওই দেখ, একজন সত্যিকারের ইস্রায়েলীয়৷ তাহার মনে কোন ছলনা নাই৷' ৪৮. নথনেল ঈসা মসিহকে জিজ্ঞাসা করিলেন, 'আপনি কেমন করিয়া আমাকে চিনিলেন?' ঈসা মসিহ উত্তরে তাহাকে বলিলেন, 'ফিলিপ তোমাকে ডাকিবার আগে যখন তুমি সেই ডুমুর গাছের তলায় ছিলে, আমি তখনই তোমাকে দেখিয়াছিলাম'৷ ৪৯. ইহাতে নথনেল ঈসা মসিহকে বলিলেন, 'হুজুর আপনিই খোদার পুত্র, আপনিই ইস্রায়েলীয়দের রাজা৷' ৫০. ঈসা মসিহ তাঁহাকে বলিলেন, 'তোমাকে সেই ডুমুর গাছের তলায় দেখিয়াছি, এই কথা বলিবার জন্যই কি ইমান আনিলে? ইহার চেয়ে আরও অনেক মহত্‍ ব্যাপার তুমি দেখিতে পাইবে৷' ৫১. পরে ঈসা মসিহ বলিলেন, 'আমি তোমাদের সত্যই বলিতেছি, তোমার বেহেস্ত খোলা দেখিবে, আর দেখিবে, খোদার ফেরেস্তারা মনুষ্যপুত্রের নিকট হইতে উঠিতেছেন এবং তাহার নিকটে নামিতেছেন৷'

নথনেল কিছুটা হতচকিত হয়েছিল যখন সে বুঝতে পারলো যে, ঈসা মসিহ তাঁর ভিতরটা দেখতে পেরেছে৷ নথনেল ছিল তৌরাতের মাপকাঠির বিচারে একজন বিশ্বাসী কারণ সে তার পাপসমূহকে বাপ্তিস্মদাতার কাছে স্বীকার করেছিল এবং আন্তরিকভাবে খোদার রাজ্য আশা করেছিল৷ এটা আত্মন্যায়পরায়ণতা ছিল না কিন্তু এটা ছিল ওই সমস্ত ভগ্নহৃদয় ব্যক্তিদের মনোভাব তাদের পাপের কারণে যারা খোদার কাছে একজন ত্রাণকর্তাকে পাঠাতে মিনতি করতো৷

ঈসা মসিহ এই প্রার্থনা শুনলো এবং মিনতিকারীটিকে দূর থেকে দেখতে পেল যে সে একটা গাছের ছায়ার নীচে নতজানু হয়ে আছে৷ এই ক্ষমতা প্রমাণ করে যে, মানুষের ভিতরে লুকায়িত বিষয়গুলি বেহেস্তি শক্তির কাছে স্পষ্ট৷

ঈসা মসিহ তাঁকে প্রত্যাখান করেনি কিন্তু তাকে সমর্থন করেছে এই বর্ণনা দিয়ে যে, সে একজন আর্দশ বিশ্বাসী যার ভিত্তি ছিল তৌরাতের ওপর এবং ঈসা মসিহের আগমনের দিকে তাকিয়ে ছিল৷

ঈসা মসিহের মনোভাব নথনেলের সন্দেহকে দূরীভূত করলো৷ সে ঈসা মসিহের কাছে সমর্পণ করলো এবং তাকে তৌরাতে উল্লেখিত পদবি যেটা ত্রাণকর্তা সম্পর্কে সংশ্লিষ্ট ছিল সেইভাবে তাকে সম্মান করলো, যেমন : খোদার পুত্র এবং ইস্রায়েলের রাজা৷ এই ধরনের কথা যখন উচ্চারণ করলো তখন নথনেলকে মৃতু্যর মুখোমুখি হতে হতো কারণ ইহুদিদের ধর্ম গুরু এবং ইহুদী পরিষদের সদস্যরা, খোদার একটি পুত্র থাকতে পারে, এটাকে অস্বীকার করেছিলো৷ এই ধরনের কথা খোদার নিন্দা হিসেবে বিবেচিত হতো৷ যখন একজন ব্যক্তিকে ইস্রায়েলের রাজা হিসেবে দাবি করা হলো তখন তাকে হেরোদের নির্যাতনের স্বীকার হতে হতো এবং রোম কর্তৃপক্ষ কতর্ৃক গ্রেফতার হতে হতো৷ এভাবে এই খাঁটি বিশ্বাসী নবীদের কাছে প্রকাশিত প্রতিশ্রুতিগুলি, যা সে উপলব্ধি করেছিল, তা প্রদর্শন করলো৷ সে মানুষ থেকে খোদাকে বেশি ভয় করতো এবং তাকে সম্মান করলো পিতা নাম আরোপ করে, যে কোনো মূল্যেই হোক৷

প্রথমদিকের কোন সাহাবিরাই ঈসা মসিহকে এই নামে ডাকে নাই যেমন নথনেল ডেকেছিল৷ আশ্চর্যজনকভাবে ঈসা মসিহ এইসব খেতাব বা নামের কোনোটাকেই প্রত্যাখ্যান করেননি কিন্তু তাকে এই দেখিয়ে সচেতন করেছিল যে বেহেস্ত উম্মোচিত হয়েছে৷ সব সময়ই ঈসা মসিহ অদৃশ্য ফেরেস্তাদের দ্বারা পরিবেষ্টিত ছিলেন, বেহেস্তে আরোহণ করা, তার মোজেজাগুলো পিতরের কাছে উপস্থাপন করা এবং পুত্র হয়ে ফিরে আসা এবং হাত ভরা উপচেপড়া আশীর্বাদ নিয়ে৷ এইভাবে ইয়াকুবের দর্শন পূর্ণ হলো, কারণ ঈসা মসিহের মধ্যে আশীর্বাদের পূর্ণতা পাওয়া গিয়েছিল৷ পৌল যেমন লিখেছিল, 'খোদা মহিমান্বিত হোক, যিনি আমাদের প্রভু ঈসা মসিহের পিতা, যিনি আমাদেরকে প্রতিটি বেহেস্তি আশীর্বাদ দিয়েছেন'৷ ঈসা মসিহের জন্ম এবং তাঁর বাপ্তিস্ম নেওয়া থেকে বেহেস্ত উন্মোচিত হয়েছে৷ তার আগে খোদার ক্রোধের কারণে বেহেস্তের দরজা বন্ধ ছিল, ফেরেস্তারা বেহেস্তের পাহারাদার হয়ে খোলা তলোয়ার হাতে দাঁড়িয়ে ছিল৷ যে দরজা খোদার কাছে নিয়ে যায় তা এখন ঈসা মসিহের মধ্য দিয়ে উম্মোচিত হলো৷

এখানে যোহন প্রথমবার ঈসা মসিহের প্রতীকস্বরূপ এই ভাষা ব্যবহার করলো 'নিশ্চয়ই, নিশ্চয়ই, আমি তোমাদেরকে বলছি...' এই যুগের রহমতের বাস্তবতা ছিল এতই পর্যাপ্ত যা মানুষের উপলব্ধির ছিল বাইরে, তবুও মানুষের এটা প্রয়োজন ছিল, যেরকম আমাদের এই নতুন এই উক্তিটি পুনরাবৃত্তি করেন, আমরা অবশ্যই কিছুক্ষণের জন্য স্থির হবো এবং তার উদ্দেশ্য সম্পর্কে গভীরভাবে চিন্তা করবো, কারণ এই উক্তিটি হলো একটি আধ্যাত্মিক প্রকাশিত কালাম যা আমাদের মনকে ছাপাইয়া যায়৷

এই ঘোষণার পর ঈসা মসিহ নথনেলের সাক্ষ্যকে শুদ্ধ করলেন নির্যাতনের বিরুদ্ধে সতর্কতা হিসেবে যা তার বিরুদ্ধে এবং নুতন জামাতগুলির বিরুদ্ধে সরাসরি ছিল৷ ঈসা মসিহ এই কথা বলেননি, আমিই সেই প্রতিশ্রুত রাজা, খোদার পুত্র কিন্তু নিজেকে বলেছেন 'মনুষ্যপুত্র'৷ এটি একটিমাত্র নাম বা খেতাব ছিল যা ঈসা মসিহ সাধারণত নিজের জন্য ব্যবহার করতেন৷ তার মানবরূপ ধারণ ছিল তার অনুপম বিনাস, তিনি আমাদের মতই হলেন এটা একটা বিশাল মাজেজা যে, খোদার পুত্র মানুষ হয়ে আসলেন, খোদার মেষশাবক হিসেবে আমাদের জন্য মৃতু্যবরণ করতে৷

একই সময় নবী দানিয়েলের কীতাবে 'মনুষ্যপুত্র' এই খেতাবটির রহস্যকে উল্লেখ করা হয়েছিল৷ খোদা মনুষ্যপুত্রকে বিচারের জন্য বিশ্বাস ভরে অর্পণ করেছিলেন৷ নথনেল এটা উপলব্ধি করেছিল যে, ঈসা মসিহ কেবল একজন রাজা এবং পুত্র নন, কিন্তু তিনি এই দুনিয়ারও বিচারক, মানুষের অবয়বে বেহেস্তিব্যক্তি৷ এইভাবে ঈসা মসিহ দুর্বল বিশ্বাসীদেরকে বিশ্বাসের উচ্চপর্যায়ে নিয়ে গিয়েছিলেন৷ এই ধরনের বিশ্বাস সহজসাধ্য ছিল না যেহেতু ঈসা মসিহ ছিলেন একজন দেশি যুবক৷ কিন্তু বিশ্বাসের মাধ্যমে সাহাবিরা তার ভিতর গুপ্ত মহিমা দেখেছিলেন যেন ওপর থেকে বেহেস্ত খুলে যাচ্ছে৷

প্রার্থনা: আমরা তোমার এবাদত করি, খোদার পুত্র এবং সর্বজনীন বিচারক৷ আমরা প্রচণ্ড ক্রোধ ছাড়া অন্য কিছুর যোগ্য নই, কিন্তু আমরা তোমার রহমতের মধ্য দিয়ে ক্ষমা চাই এবং আমাদের বন্ধুদেরকেও কৃপা করো৷ যারা খোদাকে অনুসন্ধান করে তাদেরকে তুমি তোমার আশীর্বাদে পূর্ণ করো, যাতে করে তারা তোমাকে জানতে, ভালোবাসতে, বিশ্বাস করতে পারে এবং জ্ঞানে, আশায় বৃদ্ধি পেতে পারে৷

প্রশ্ন:

২৩. 'মনুষ্যপুত্র' এবং 'খোদার পুত্র' এই দুটো উপধির মধ্যে কী সম্পর্ক রয়েছে?

www.Waters-of-Life.net

Page last modified on June 12, 2012, at 09:43 AM | powered by PmWiki (pmwiki-2.2.109)